এক্সপায়ার হয় পেট্রল, ডিজেলও! এতদিন গাড়িতে থাকলে হয়ে যায় খারাপ! বিপদে এড়াতে জানুন

বিভিন্ন দ্রব্য কেনার সময় আমরা তার সাথে চেক করে নিই কতদিন অবধি মেয়াদ রয়েছে প্রোডাক্টটির। সমস্ত জিনিসের ক্ষেত্রেই মেয়াদ চেক করলেও একটা জিনিসের মেয়াদ কতদিন সেসম্পর্কে আমরা জানিনা তবুও কিনতে থাকি। আর এটা হলো পেট্রোল, ডিজেল। জানেন কি পেট্রোল, ডিজেলের মেয়াদ ঠিক কতদিন?

আমরা কেউই জানিনা পেট্রোল, ডিজেল কতদিন আগে তৈরি হয়েছে, বা কতদিন মেয়াদ বাকি তার। তবুও পেট্রোল, ডিজেল ঠিক ব্যাবহার করি। প্রায়শই আমরা গাড়ির ট্যাংক ভর্ত্তি করে রাখি কিন্তু এরপর কখনো কখনো কয়েক মাস চালানো হয়ে ওঠেনা। এটা কি ক্ষতি করবে গাড়ির? চলুন দেখে নিই কি জানাচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা।

অতদিন ধরে গাড়িতে পেট্রোল, ডিজেল ভরে রাখা কি ক্ষতিকারক? তাহলে আপনাদের জানিয়ে দিই যে, হ্যাঁ খুবই খারাপ। আসলে পেট্রোল এবং ডিজেলের মধ্যে ইথানল মেশানো হয়। এবং এই ইথানল তেলের সেলফ লাইফ কমিয়ে দেয়।

ভারতে যে তেল পাওয়া যায় তাতে ২০ শতাংশ ইথানল মেশানো রয়েছে। কয়েকদিন আগেই ভারত সরকার এই লক্ষ্যমাত্রা হাসিল করে। ইথানলের কারণে গাড়ি দীর্ঘক্ষণ পার্ক করা থাকলে পেট্রোল বাষ্পে পরিণত হয়। এরপর সেই বাষ্প বাইরে আসতে না পারায় নষ্ট হয়ে যায়।

বিশেষজ্ঞরা জনানছেন যে, সিল করা পাত্রে পেট্রোল, ডিজেল এক বছরের জন্য সংরক্ষণ করা যেতে পারে। মোটর গাড়ির মতো বাইক বা স্কুটারে ৬ মাস তেল রাখা সম্ভব। কিন্তু এক্ষেত্রে তাপমাত্রা ২০ ডিগ্রীর বেশি হওয়া চলবে না।

oil petrol

তবে তাপমাত্রা যদি বেড়ে যায় তাহলে এই মেয়াদ আরো কম হয়। যেমন ৩০ ডিগ্রি উষ্ণতায় ৩ মাস টিকে থাকবে তেল। তাই আপনি যদি গাড়ি খুব বেশিদিন পার্ক করে রাখতে পারেন বলে মনে হচ্ছে তাহলে বেশি তেল ভরবেন না। তেল ভরলে পার্ক করার আগে সেই তেল ব্যবহার করে নেওয়াই শ্রেয়।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button