জাপানের সঙ্গে হাত মিলিয়ে মহাকাশে নতুন অভিযানে নামছে ISRO, চেয়ে দেখবে গোটা বিশ্ব

আবারো চাঁদ নিয়ে নয়া মিশনে নামছে ইসরো (Indian Space Research Organisation)। চন্দ্রযান এবং চন্দ্রযান ২ এর পর নতুন করে নয়া মিশনে নামছে ভারতীয় মহাকাশ গবেষণা সংস্থা। আর সেই কারণে এবার ISRO’র সাথে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করবে জাপান (Japan)। দুই দেশ একত্রে নামছে নয়া মিশনে।

এর আগে ‘চন্দ্রযান ২’ কে পাঠানো হয় চাঁদের গোপন পৃষ্ঠে নামার জন্য। কিন্তু শেষমুহূর্তে যান্ত্রিক গোলযোগের কারণে চাঁদে নামতে ব্যর্থ হয় যানটি। তাই এবার জাপানের সাথে হাত মিলিয়ে নয়া অভিযানে নামছেন ইসরো‘র বিজ্ঞানীরা। সামনেই একের পর এক মিশন রয়েছে ইসরোর। মঙ্গল থেকে শুক্র, বিভিন্ন গ্রহে গবেষণার কাজ শুরু করবেন বিজ্ঞানীর দল।

আর তারই মধ্যে নয়া খবর যে, জাপান এবং ভারত এবার যৌথ উদ্যোগে চাঁদে নিজেদের মহাকাশ যান পাঠাবে। এই উদ্যোগ সম্পর্কে আহমেদাবাদের ফিজিক্যাল রিসার্ট ল্যাবরেটরির ডিরেক্টর অনিল ভরদ্বাজ জানান, জাপানের মহাকাশ সংস্থার সাথে আলোচনায় রয়েছেন তারা। তিনি এদিন এও জানান যে, এবার যৌথ উদ্যোগে চাঁদে রোভার পাঠানো হবে।

চাঁদের দক্ষিণ মেরু সংলগ্ন কিছু অংশ সর্বদাই বরফাবৃত ও অন্ধকারাচ্ছান্ন হয়ে থাকে। এবার সেখান ঠিক কি রয়েছে জানতেই একজোট হয়েছে ভারত ও জাপান। অনিল ভরদ্বাজ এও জানিয়েছেন যে, আগামী বছরের একদম শুরুর দিকেই চন্দ্রযান-৩ উৎক্ষেপণের পরিকল্পনা রয়েছে ইসরোর। তারপরই হবে জাপানের সাথে নয়া চন্দ্রাভিযান।

isro launch 2

তবে এও জানা যাচ্ছে যে, প্রয়োজনে চন্দ্রযান-৩ এর রোভারটি পুনঃব্যবহার করা যেতে পারে। প্রসঙ্গত এই প্ল্যানের জন্য ৪০০ কেজি ওজনের একটি বিশেষ স্যাটেলাইট তৈরি করা হবে। সেটিকে স্থাপন করা হবে পৃথিবীর কক্ষপথ থেকে ১৫ লক্ষ কিলোমিটার দূরে। জাপানের অবশ্য প্ল্যান এই যে, চাঁদের দক্ষিণ মেরুর খুব কাছাকাছি কোথাও রোভার নামানোর।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button