ভারতে প্রথম দীঘায় সমুদ্রের নীচে তৈরি হবে ‘সুড়ঙ্গ”, দেখতে ভিড় জমাবে পর্যটকরা! উদ্যোগ সরকারের

দীঘাকে (Digha) সাজিয়ে তোলার নতুন নতুন প্রয়াস চালিয়ে যাচ্ছে পশ্চিমবঙ্গ সরকার (Government)। এবার প্রস্তাবনা এসেছে দীঘায় নয়া আন্ডারওয়াটার টানেল (Underwater Tunnel) গড়ে তোলার। সাবমেরিন মিউজিয়ামের ঠিক পাশেই গড়ে তোলা হবে এই নয়া প্রকল্প। এর ফলে সমুদ্রের নিচে কিরকম দৃশ্য ঘটে সেটা দেখা যাবে। তৈরি হওয়ার পর পর্যটকদের কাছে এক নয়া আকর্ষণ হবে এই অ্যাক্রালিকের সুড়ঙ্গ।

নয়া এই প্রোজেক্টের দায়িত্ব পড়েছে হাউজিং ইনফ্রাস্ট্রাকচার ডেভলপমেন্ট কর্পোরেশন (HIDCO) এর ওপর। আর সুষ্ঠুভাবে এই প্রকল্প নির্মাণ করতে সংস্থাটি ইতিমধ্যেই নকশা তৈরির জন্য ভারত তথা আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলিকে আহ্বান জানিয়েছে। আসলে এর আগে রাজ্য সরকার দীঘায় একটি মেরিন অ্যাকোয়ারিয়াম ও রিজিওনাল সেন্টার এর উদ্বোধন করলেও জনপ্রিয় হয়ে উঠতে পারেনি।

আসলে পর্যাপ্ত পরিমাণ পরিকাঠামো ব্যবস্থা না থাকায় অ্যাকোয়ারিয়ামের মান বিশ্বমানের নয়। আর সেই কারণে এটি নবাগত পর্যটকদের কাছে সেরকম পছন্দসই হয়ে ওঠেনি। কিন্তু এই নয়া আন্ডারওয়াটার পার্কটি অনেকটা আলাদা হতে চলেছে। একদম সিঙ্গাপুরের ন্যায় তৈরি করা হবে এই পার্ক। যদিও প্রকল্পটি বাস্তবায়নের থেকে বেশ খানিকটা দূরে, এখনো আলোচনার পর্যায়ে রয়েছে।

একইসাথে দীঘাতে পুরীর আদলে জগন্নাথ মন্দির তৈরি করা হচ্ছে। পর্যটকদের টানতে কিছুদিন আগেই সাবমেরিন মিউজিয়াম নির্মাণ প্রকল্প নিয়েও পুরোদমে তোরজোড় চলছে। এর সাথে এই নয়া আন্ডারওয়াটার পার্ক পর্যটকদের কাছে আরো আকর্ষক এক বস্ত হয়ে উঠবে।

কেমন হবে জলের নীচের এই নয়া সুড়ঙ্গ? বিশ্বমানের তৈরি করতে সেটি নির্মাণ হবে অ্যাক্রালিক দিয়ে। সেখানে দেখা যাবে সামুদ্রিক সমস্ত প্রাণীদের চলাফেরা। একইসাথে সমুদ্রের তলদেশ কিরকম হয় সেটাও দেখতে পাবেন এই সুড়ঙ্গের মধ্যে। সরকারের এই পদক্ষেপের ফলে মানুষের মধ্যে সামুদ্রিক জীবকূলের প্রতি যেমন আগ্রহ বাড়বে তেমনই রোজগার বাড়বে সধারণ মানুষ এবং রাজ্য সরকারের। কিন্তু সেইজন্য এই প্রকল্প নির্মাণ করার সময় অত্যন্ত সতর্ক থাকতে হবে। একটু ভুলচুক হলেই পর্যটকরা আর যেতে চাইবেন না।

যদিও এখানে স্বচ্ছ জল নিয়ে সংশয় রয়েছে। কারণ দীঘা সংলগ্ন অঞ্চলে পলির পরিমাণ অত্যন্ত বেশি। তাই সমুদ্রের জলকে স্বচ্ছ করা এক চ্যালেঞ্জ হবে। সেইসাথে এখানে সমুদ্রের বাস্তুতন্ত্রের এক রূপ নির্মাণ করা হবে।

digha marine drive

কি ভাবছে HIDCO : আপাতত কোনো অভিজ্ঞতাসম্পন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থাকে এই কাজের দায়িত্ব দিতে চাইছে হিডকো। এই প্রজেক্টের মূলনকশার দায়িত্বেও থাকবে সেই সংস্থা। নিজেদের ভাবনা নিয়ে এই প্রকল্প সম্পর্কে সিঙ্গাপুর চেম্বার অফ কমার্সেও নিজেদের প্রস্তাব পাঠাবে HIDCO।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button