কয়েক জায়গায় বৃষ্টি! মকর সংক্রান্তির আগেই আমূল বদলে যাবে দক্ষিণবঙ্গের আবহাওয়া

আলিপুর আবহাওয়া দফতরের পূর্বাভাসই যেন অক্ষরে অক্ষরে মিলে গেল। ঘন কুয়াশায় ঢেকে গেল কলকাতা (Kolkata) শহর থেকে শুরু করে দক্ষিণবঙ্গের (South Bengal) একের পর এক জেলা। সেইসঙ্গে পারদের ওঠানামার খেলা অব্যাহত রয়েছে। পৌষ সংক্রান্তির (Makar Sankranti) আগে মানুষের মুখে মুখে এখন একটাই প্রশ্ন, ঠান্ডা কই?

বর্তমানে তীব্র কুয়াশা ও ঠান্ডার দাপট চলছে সমগ্র দেশজুড়ে। শুধুমাত্র তাই নয়, ভারতীয় আবহাওয়া অধিদফতর বা আইএমডির তরফে এই জানুয়ারি মাসেও বৃষ্টির পূর্বাভাস জারি করেছে। দেশের দক্ষিণাংশে দফায় দফায় বর্ষণের পূর্বাভাস জারি করা হয়েছে। আগামী ২৪ ঘন্টার মধ্যেই একের পর এক রাজ্যের আবহাওয়া বদলে যাবে বলে অনুমান সকলের।

   

তবে বাংলায় কবে জাঁকিয়ে শীত পড়বে? সেই নিয়ে প্রশ্ন খুঁজছেন বাংলার শীতপ্রেমীরা। আবহাওয়ার ভাবগতিক দেখে অনেকেরই আশঙ্কা, পৌষ সংক্রান্তির আগেই বাংলায় জাঁকিয়ে শীত পড়ে যাবে। ফলে সকলকে গায়ে সোয়েটার, জ্যাকেট পরে থাকার পরামর্শ অবধি দেওয়া হচ্ছে। কারণ এই ঠান্ডা একবার উপেক্ষা করা মানেই। সর্দি, কাশি, জ্বরকে স্বাগত জানানো।

আলিপুর মৌসম ভবন জানাচ্ছে, আজ অর্থাৎ বুধবার থেকেই বাংলার আবহাওয়ায় বড় পরিবর্তনের পূর্বাভাস রয়েছে। কোথাও কোথাও তাপমাত্রা ৪ ডিগ্রি পর্যন্ত কমে যেতে পারে। কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১২ থেকে ১৩ ডিগ্রিতে নেমে যেতে পারে বলে অনুমান হাওয়া অফিসের। আজ শহর কলকাতা ও তার পার্শ্ববর্তী জেলাগুলিতে তাপমাত্রা ১৬ ডিগ্রির ওপরেই আছে।

weather winter 1280

অন্যদিকে উত্তরবঙ্গের (North Bengal) কথা বলতে গেলে, দার্জিলিং-এর (Darjeeling) কোনও কোনও জায়গায় হালকা বৃষ্টি হতে পারে। এছাড়া সবকটি জেলার আবহাওয়া শুকনো থাকবে। আগামী ২৪ ঘন্টায় হিমালয় সংলগ্ন পশ্চিমবঙ্গের জেলাগুলিতে রাতের তাপমাত্রার তেমন কোনও পরিবর্তন না হলেও পরবর্তী চার দিনে তাপমাত্রা দুই থেকে চার ডিগ্রি পর্যন্ত কমে যেতে পারে বলে খবর।

সম্পর্কিত খবর