বড় চমক! রাজ্যের স্কুলগুলোর জন্য বিরাট ঘোষণা পশ্চিমবঙ্গ সরকারের, উপকৃত হবে পড়ুয়ারা

শিক্ষাক্ষেত্রে ইন্টারনেটের ব্যবহার নিয়ে নানাজনের নানা মত রয়েছে। অনেকেই আছেন যারা শিক্ষা ক্ষেত্রে এই ব্যাপারটিকে একপ্রকার মেনে নিতে পারেন না। কিন্তু পশ্চিমবঙ্গ সরকার (Government Of West Bengal) এমন এক সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে কারণে চমকে গিয়েছেন সকলে। এবার থেকে রাজ্যের সমস্ত স্কুলে মিলবে হাইস্পিড ইন্টারনেট পরিষেবা। একটি বিশেষ নির্দেশিকা জারি করে নতুন করে সকলকে চমকে দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)।

জানা গিয়েছে, মুখ্যমন্ত্রী এবার বাংলার বেশ কিছু স্কুলে হাইস্পিড ইন্টারনেট পরিষেবা চালু করার নির্দেশ দিয়েছেন। এদিকে মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশ মেনে খুব শীঘ্রই একগুচ্ছ স্কুলে ইন্টারনেট পরিষেবা চালু করবে স্কুল শিক্ষা দফতর। জানা যাচ্ছে, আগামী ২ মাসের মধ্যে চালু হবে এই পরিষেবা।

   

আপাতত ৩৯ মাসের জন্য জারি থাকবে এই পরিষেবা। মূলত ওয়েবেল প্রাথমিক, মাধ্যমিক এবং উচ্চ-মাধ্যমিক সব বিদ্যালয়ে হাইস্পিড ইন্টারনেটের কানেকশন বসাবে স্কুল শিক্ষা দফতর বলে খবর। বিগত বেশ কিছু সময় ধরেই একাধিক স্কুল অভিযোগ তুলছিল যে ইন্টারনেটের স্পিড খুবই কম। ফলে কাজও হচ্ছে অনেক ধীর গতিতে। এই নিয়ে স্কুল শিক্ষা দফতরের একের পর এক অভিযোগ অবধি জমা পড়ছিল।

স্কুলগুলির দাবি অনুযায়ী, এখন ‘বাংলা শিক্ষা পোর্টালের’ মাধ্যমে স্কুলগুলি নিয়ন্ত্রিত হয়। এদিকে শিক্ষা দফতরের নিয়ম অনুযায়ী, পড়ুয়াদের নম্বর এই পোর্টালে আপলোড করতে হয়। আর তার জন্য প্রয়োজন ইন্টারনেট। কিন্তু একাধিক স্কুল বারবার অভিযোগ তুলছিল যে অনেক সময় নেটের সমস্যার জন্য খুব ধীর গতিতে কাজ করতে হয়। এবার এই অভিযোগের ভিত্তিতে সাড়া দিয়ে বড় কাজ করতে চলেছে স্কুল শিক্ষা দফতর।

সম্পর্কিত খবর