ফিক্সড ডিপোজিট অতীত! প্রতি মাসে ২৫০০০ টাকা দেবে পোস্ট অফিস, এই স্কিমে করুন বিনিয়োগ

প্রবীণ নাগরিক হোক বা অন্য যে কোনও বয়সের মানুষ…নিজেদের ভবিষ্যৎ সুরক্ষিত করতে কিছু না কিছু করেই চলেছে। কেউ হয় ব্যাঙ্কে (Bank) টাকা জমাচ্ছেন তো কেউ ফিক্সড ডিপোজিট (Fixed Deposit) করছেন তো কেউ কেউ অন্য জায়গায় বিনিয়োগ (Invest) করছেন। এদিকে প্রবীণ নাগরিকরা নিজেদের ভালর জন্য এমন কিছু ভালো জায়গায় বিনিয়োগের অপশন খোঁজেন যেখানে টাকাটাও সুরক্ষিত থাকে আবার উচ্চ সুদও মেলে।

আজ এই প্রতিবেদনে তেমনই একটি স্কিম নিয়ে আলোচনা হবে যেখানে আপনি মাস গেলে মাত্র কিছু টাকা বিনিয়োগ করলে কয়েক বছর পর বেশ মোটা অঙ্কের টাকা চোখে দেখতে পারবেন বৈকি। আর এটি পোস্ট অফিসের (Indian Post) একটি দুর্দান্ত স্কিম। যেখানে আপনি প্রতি মাসে ২৫০০০ টাকা অবধি পেয়ে যেতে পারেন।

   

আজ কথা হচ্ছে সিনিয়র সিটিজেন সেভিংস স্কিম নিয়ে। এর অধীনে আপনার অর্থ সুরক্ষিত থাকে কারণ অর্থ পরিচালনা, বিনিয়োগ এবং রিটার্ন দেওয়ার দায়িত্ব সরকারের। প্রবীণ নাগরিকদের প্রয়োজনের কথা মাথায় রেখে সরকার এই প্রকল্প তৈরি করেছে। সরকার এই স্কিমে সর্বোচ্চ সুদ দিচ্ছে। এটি পোস্ট অফিস ক্ষুদ্র সঞ্চয় প্রকল্প দ্বারা প্রদত্ত প্রকল্পগুলির মধ্যে সর্বাধিক সুদ পাচ্ছে।

বর্তমানে প্রবীণ নাগরিকরা এই স্কিমের আওতায় ৮.২ শতাংশ সুদ পাচ্ছেন পোস্ট অফিসের তরফে।   যদি বিনিয়োগের সীমা ৩০ লক্ষ টাকা হয় এবং সুদের হার ৮.২ শতাংশ হয় তবে আপনি পাঁচ বছরের মেয়াদপূর্তিতে ১২.৩০ লক্ষ টাকা সুদ সহ মোট ৪২.৩০ লক্ষ টাকা পাবেন। যদি বার্ষিক ভিত্তিতে হিসাব করা হয়, তাহলে তা ২ লাখ ৪৬ হাজার টাকা। মাসিক ভিত্তিতে পাবেন ২০,৫০০ টাকা। আপনি মোট ৫ বছরের জন্য সিনিয়র সিটিজেন সেভিংস স্কিমে অর্থ বিনিয়োগ করতে পারেন।

money save

এই স্কিমে বিনিয়োগের পরিমাণ ৮.২ শতাংশ সুদ দেওয়া হচ্ছে। সরকারের এই স্কিমে আপনি ১০০০ টাকা থেকে ৩০ লক্ষ টাকা পর্যন্ত বিনিয়োগ করতে পারেন। কর ছাড়ের কথা বললে, আয়করের ধারা 80C এর অধীনে, ১.৫ লক্ষ টাকার বিনিয়োগ অব্যাহতিপ্রাপ্ত। আপনি যদি ব্যাংকগুলির সাথে তুলনা করেন তবে কয়েকটি ব্যাংক গ্রাহকদের ৮.২% এর বেশি সুদ দিচ্ছে।

৬০ বছরের বেশি বয়সী গ্রাহকরা সিনিয়র সিটিজেন সেভিংস স্কিমে বিনিয়োগ করতে পারেন। এই স্কিমে আগ্রহ ত্রৈমাসিক ভিত্তিতে প্রাপ্ত হয়। যেখানে আপনি ৫ বছরের লক-ইন পিরিয়ড শেষ হওয়ার পরেই পুরো টাকা পাবেন। এই প্রকল্পে, গ্রাহকরা সর্বনিম্ন ১,০০০ টাকা থেকে বিনিয়োগ শুরু করতে পারেন। এখন এই প্রকল্পে সর্বোচ্চ ৩০ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করা যেতে পারে। এছাড়াও, আপনি এই স্কিমে ধারা 80C এর অধীনে কর ছাড় পাবেন।

 

সম্পর্কিত খবর