প্রতিমাসে ৪৯৫০ টাকা নিশ্চিত আয়, পোস্ট অফিসের এই স্কিমে একবার বিনিয়োগেই দূর হবে চিন্তা

পোস্ট অফিস (India Post) মাসিক আয় স্কিম এমন একটি সরকারি ক্ষুদ্র সঞ্চয় প্রকল্প, যা বিনিয়োগকারীদের প্রতি মাসে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ আয় করার সুযোগ দেয়। ভারত সরকার পরিচালিত পোস্ট অফিস স্কিম হওয়ায় এতে আপনার টাকাও থাকে নিরাপদ। মাসিক আয় স্কিম অ্যাকাউন্টে বিনিয়োগ করতে হবে শুধুমাত্র একবারই।

এই স্কিমের অধীনে দুইভাবে অর্থ বিনিয়োগ করা সম্ভব। একক বা যৌথ উভয়ক্ষেত্রেই, তবে যে পরিমাণ অনুযায়ী অর্থ বিনিয়োগ করা হবে সেই পরিমাণ অনুযায়ী প্রতি মাসে অ্যাকাউন্টে টাকা আসতে থাকবে। তবে এই স্কিমটি ৫ বছরের জন্য, যা পরবর্তীতে আরও পাঁচ বছরের জন্য বাড়ানো যেতে পারে। এই ৫ বছর পরই আপনি মাসিক আয়ের নিশ্চয়তা পেতে শুরু হবে। তবে চলুন এবার জেনে নেওয়া যাক এই স্কিমের ব্যাপারে।

কে বিনিয়োগ করতে পারেন এই স্কিমে?
যেকোন ভারতীয় নাগরিকই পোস্ট অফিস মাসিক আয় প্রকল্পে বিনিয়োগ করতে পারেন।

কীকরে খুলবেন এই অ্যাকাউন্ট?
পোস্ট অফিস মাসিক ইনকাম স্কিমের অধীনে, শুধুমাত্র ১০০০ টাকা দিয়েই খোলা যাবে অ্যাকাউন্ট। তবে এক্ষেত্রে স্কিম গ্রহণকারীর বয়স ১৮ উত্তীর্ণ হতেই হবে। পোস্ট অফিস এমআইএস-এ একক এবং যৌথ অ্যাকাউন্ট খোলার সুবিধা রয়েছে। একজন ব্যক্তি একসাথে সর্বোচ্চ ৩ জন অ্যাকাউন্টধারীর সাথে একটি অ্যাকাউন্ট খুলতে পারেন।

পোস্ট অফিস এমআইএস-এ সর্বাধিক কত টাকা বিনিয়োগ করা যেতে পারে?
একটি একক অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে সর্বাধিক ৪.৫ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করা যেতে পারে এবং একটি যৌথ অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে সর্বাধিক ৯ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করা যেতে পারে।

কিভাবে মাসিক অ্যাকাউন্টে আসা পরিমাণ নির্ধারণ করা হয়?
পোস্ট অফিসের এই স্কিমে বার্ষিক ৬.৬ শতাংশ সুদ পাওয়া যায়, এবং এই স্কিম নেওয়ার ৫ বছর পর থেকে প্রতি মাসে শুরু হবে নিশ্চিত আয়। এবার আপনি যদি একটি যৌথ অ্যাকাউন্টে ৯ লক্ষ টাকা এককভাবে জমা করেন, তাহলে ৫ বছর পর বার্ষিক ৬.৬ শতাংশ সুদের হারে এই পরিমাণ টাকার মোট সুদ হবে ৫৯,৪০০ টাকা। এই পরিমান সুদ বছরের ১২ মাসে দেওয়া হবে। এইভাবে প্রতি মাসে সুদ হবে প্রায় ৪,৯৫০ টাকা। ঠিক একই ভাবে একটি একক অ্যাকাউন্টে ৪.৫ লক্ষ টাকা জমা করলে সেই টাকার মাসিক সুদ হবে ২,৪৭৫ টাকা।

india post job

স্কিমের শর্তগুলি কী কী?
এই অ্যাকাউন্টটি খোলার প্রথম শর্তই হল যে, আপনি ১ বছরের আগে আপনার জমা টাকা তুলতে পারবেন না। অন্যদিকে, আপনি যদি এটির মেয়াদ শেষ হওয়ার আগে অর্থাৎ ৩ থেকে ৫ বছরের মধ্যে যেকোনো সময় এটি তুলে মেন, তাহলে মূল পরিমাণের ১ শতাংশ কেটে নেওয়ার পরে ফেরত দেওয়া হবে।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button