কখন সবথেকে বেশি আনন্দ পান তিনি? নিজেই জানালেন রতন টাটা! মন ছুঁয়ে যাবে ভাইরাল ভিডিও

নিজের সহজ সরল এবং সাধাসিধে প্রকৃতির কারণে রতন টাটা (Ratan Tata) সর্বদাই সারা ভারতে বেশ বিখ্যাত। মানুষের মনের মধ্যে আধিপত্য বিস্তার করেছেন তিনি। এত বড় ব্যবসায়ী হওয়ার পরেও তার বিনয় দেখে সবাই স্তম্ভিত। আর সেই কারণে রতন টাটা শুধুই টাটা গ্রুপ (Tata Group) অফ ইন্ডাস্ট্রিজের চেয়ারম্যান এর জন্য নন, নিজের কারণেও মানুষের মধ্যে বেশ বিখ্যাত তিনি

মানুষের মধ্যে রতন টাটার বিখ্যাত হওয়ার এক অন্যতম কারণ হলো তার মোটিভেশনাল বক্তৃতা এবং সময়োপযোগী উপদেশ। এছাড়া তিনি নিজে একজন বিরাট জনহিতৈষী মানুষ। তার দানের পরিমাণ দেখলে লজ্জা পাবেন অনেক বড় ধনী ব্যক্তিও। বর্তমানে সোশ্যাল মিডিয়াতে আবারো ভাইরাল হয়েছে তার বক্তৃতা।

সম্প্রতি ৮৪ বছর বয়সী বিজনেস টাইকুন এবং মানবপ্রেমী রতন টাটা জানিয়েছেন তিনি কখন আনন্দ পেয়ে থাকেন। রতন টাটাকে আমরা সবাই চিনলেও তার ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে আমরা প্রায় কিছু জানিনা। তার চাহিদা থেকে শুরু করে কোনো তথ্যই আমরা সেরকম জানিনা। কিন্তু এবার নিজের মুখেই জানিয়েছেন কখন আনন্দ পান তিনি।

রতন টাটা জানান যে, তিনি সবচেয়ে বেশি আনন্দ পান তখনই যখন সবাই হাল ছেড়ে দেয় অথবা কাজ করতে গিয়ে বলে এটা প্রায় অসম্ভব কিন্তু তিনি সেই অসম্ভবকে করে দেখানোর চেষ্টা করছেন অথবা করে দেখিয়েছেন। প্রসঙ্গত এই ভাইরাল ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করেছেন RPG এন্টারপ্রাইজের চেয়ারম্যান হর্ষ গোয়েঙ্কা। তিনি তার অফিসিয়াল টুইটার হ্যান্ডেলে পোস্ট করেন এই ভিডিও।

রতন টাটার সরল, নম্র এবং সাধাসিধে বাক্য ব্যবহারের মধ্যেই শান্ত অথচ দৃঢ় প্রত্যয়ের সাথে বলা অনুপ্রেরণামূলক কথাগুলোর কারণে তাকে লোকে এত পছন্দ করে। অনেকে তাকে ‘লেজেন্ড’ অ্যাখা দিয়েছেণ। আর সেই ভাইরাল ভিডিওর কমেন্ট সেকশন ভরিয়ে দিয়েছেন দুর্দান্ত সব কমেন্টে।

যেমন একজন লিখেছেন, রতন টাটা একবার বলেছিলেন ১ লক্ষ টাকার কমে তিনি গাড়ি বানাবেন ভারতীয়দের জন্য, অনেকেই তাকে বিশ্বাস করেনি কিন্তু তিনি সেই অসম্ভবকে সম্ভব করে দেখিয়েছেন। অনেকেই তাকে দেব রূপে প্রশংসা জ্ঞাপন করেছে। প্রসঙ্গত জানিয়ে রাখি রতন টাটা, টাটা গ্রুপের চেয়ারম্যান হওয়ার পাশাপশি বেশ কিছু স্টার্টআপে বিনিয়োগ করেছেন। যার মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো, Ola Electric, Paytm, CarDekho, Snapdeal, Curefit, Zivame, Urban Company, Lenskart ইত্যাদি।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button