নাবালিকাকে গণধর্ষণ, শিক্ষা দিতে দুই ধর্ষককে জ্যান্ত জ্বালাল গ্রামবাসীরা! একজনের মৃত্যু

ঝাড়খণ্ড থেকে সামনে এল এক অত্যন্ত চাঞ্চল্যকর ঘটনা। ধর্ষণে অভিযুক্ত দুই যুবককে পুড়িয়ে মারার ঘটনা প্রকাশ্যে এসেছে পশ্চিমবঙ্গের প্রতিবেশী রাজ্য থেকে। ঘটনাটি ঘটেছে ঝাড়খণ্ডের গুমলায়। বুধবার রাত্রেই গ্রামবাসীরা ধর্ষণে অভিযুক্ত দুই যুবককে নৃশংসভাবে পুড়িয়ে মারে।

ইতিমধ্যে পুলিশের তরফ থেকে জানা যাচ্ছে যে, দুই অভিযুক্তের একজনের পুড়ে যাওয়ার কারণে মৃত্যু হয়েছে। অভিযুক্ত সুনীল ওঁরাও ঘটনাস্থলেই মারা গিয়েছে, এবং অন্য এক অভিযুক্ত আশিস কুমার মৃত্যুর সাথে লড়াই করছে।

জানা যাচ্ছে যে, মায়ের সাথে কাজে বেরিয়েছিলেন নাবালিকা। এরপর হঠাতই তাদের পথ আটকে দাঁড়ায় দুই মূর্তিমান সুনীল এবং আশিস। তারপর জোর করে তাকে তুলে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করে তারা। আর এই খবর গ্রামের সবার সামনে আসতেই ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে গ্রামবাসীরা। এরকম নোংরা ঘটনার উচিৎ শিক্ষা দিতেই দুই ধর্ষককে চূড়ান্ত শাস্তি দেয় তারা।

আসলে এই খবর চাউর হতেই তক্কে তক্কে ছিলেন গ্রামবাসীরা। আর তারপর বুধবার রাত্রিবেলা দুই ধর্ষককে একইসাথে পাকড়াও করে তারা। এরপর প্রথমে লাঠিসোটা দিয়ে মারতে শুরু করে গ্রামবাসীরা। এবং শেষে তাদের জীবন্ত পুড়িয়ে মারার জন্য আগুন ধরিয়ে দেয় ওই দুই যুবকের গায়ে।

কিন্তু ততক্ষণে থানায় রিপোর্ট পৌঁছে যাওয়ায় পুলিশের একটি দল সেখানে পৌঁছায় এবং তাদের উদ্ধার করে। কিন্তু ততক্ষণে এক অভিযুক্তের শরীরের অধিকাংশ অংশই জ্বলে গিয়েছিল। তাই হাসপাতাল নিয়ে যাওয়া হলে তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা। আর একজনকে সংকটজনক অবস্থায় ভর্ত্তি করা হয়েছে হাসপাতালে। তার শরীরেরও বেশিরভাগ অংশই আগুনের জন্য ঝলসে গিয়েছিল। পুলিশ অবশ্য ইতিমধ্যেই গ্রামের লোকেদের বিরুদ্ধেও তদন্ত শুর করেছে।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button