নিম্নচাপ দুর্যোগের প্রভাবে জারি চূড়ান্ত সতর্কতা, তবে স্বস্তির খবর শোনাল আবহাওয়া দফতর

নিম্নচাপের প্রভাবে সারা রাজ্যেই শুরু হয়েছে বৃষ্টি। ১৯ ও ২০ আগস্ট বৃষ্টির সম্ভাবনা জানিয়েছিল আবহাওয়া অফিস। কিন্ত এবার শনিবার দুপুর থেকেই রাজ্যের ওপর থেকে দুর্যোগের মেঘ সরে যেতে চলেছে। তবে হওয়ার দাপট কমলেও ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে রাজ্যজুড়ে।

বেলা বাড়ার সাথে সাথে আবহাওয়ার কিছুটা উন্নতি হবে। আকাশ পরিষ্কার হতে শুরু করলেই, কমে যাবে বৃষ্টির ঘনঘটা। গতকাল অতি গভীর নিম্নচাপও স্থলভাগে প্রবেশ করার সাথে সাথেই দুর্বল হয়ে পড়ে। ওড়িশা থেকে ঝাড়খণ্ডের দিকে সরে যাওয়ায় রাজ্যের পশ্চিমাঞ্চলের জেলাগুলিতে ভারী বৃষ্টি হবে। পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, ঝাড়গ্রাম ও পশ্চিম মেদিনীপুরে প্রবল বৃষ্টি চলবে আর বাকি জেলাতে হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টির সম্ভাবনা আছে।

তবে শনিবার বর্ষণ চললেও রবিবার থেকে আমূল পরিবর্তন হয়ে যাবে। বেলা বাড়লেই মেঘ সরে সূর্যদেব আবার নিজের ত্বেজ বর্ষন করতে থাকবেন। তবে আকাশ সাধারণত মেঘলা থাকব। সকালের দিকে সামান্য বৃষ্টিও হতে পারে। তবে নিম্নচাপের প্রভাবে বেশ শীত শীত অনুভব শুরু হয়েছে কলকাতায়। তাপমাত্রা নেমে গিয়েছে স্বাভাবিকের নিচে। গতকাল এর সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ২৫.৭ ডিগ্রী, আর সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩০.৬ ডিগ্রি।

নিম্নচাপের প্রভাবে বাতাসে জলীয় বাষ্পের পরিমাণ ছিল অনেকটাই বেশি। এদিন কলকাতার আবহাওয়াতে ৯৬ শতাংশ জলীয় বাষ্পের পরিমাণ থাকলেও ঠান্ডা আবহাওয়ার কারণে তীব্র গরমের অনুভূতি আসেনি। দক্ষিণবঙ্গে শনিবারও মেঘলা আকাশ থাকবে এবং তার সাথে হালকা মাঝারি বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। পশ্চিমের জেলাগুলিতে বিক্ষিপ্তভাবে ভারী বৃষ্টি হতেও পারে।

বেলা বাড়লে কলকাতা-সহ পূর্ব দিকের জেলাগুলিতে আবহাওয়ার অনেকটাই উন্নতি হবে। রাঢ় বঙ্গে অর্থাৎপশ্চিম মেদিনীপুর, ঝাড়গ্রাম, বাঁকুড়া, পুরুলিয়াতে আজ বিক্ষিপ্তভাবে দু’এক পশলা ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা আছে। উত্তরবঙ্গের দিকে হাল্কা বৃষ্টি হলেও ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা খুবই কম। তাই সবমিলিয়ে নিম্নচাপের ঘনঘটা রবিবারই সম্পূর্ন রূপে শেষ হতে চলেছে।

weather1

ধীরে ধীরে ভারতের মধ্যভাগের দিকে সরে গিয়ে গভীর নিম্নচাপটি এখন ঝাড়খন্ড ও ছত্রিশগড় সংলগ্ন এলাকাতে রয়েছে। পরবর্তীতে এটি ভারতের ভূমিভাগের মধ্যে দিয়ে যত এগিয়ে যাবে ততই নিজের শক্তি হারাবে। কিন্তু শক্তি হারানোর আগে নিম্নচাপের প্রভাবে ঝাড়খন্ড ছত্রিশগড় ও পূর্ব মধ্যপ্রদেশে ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button