কম বিনিয়োগে বেশি আয়, আজীবন চলা এই ব্যবসা করে ভুলে যাবেন টাকার চিন্তা

বর্তমান প্রজন্মের মধ্যে দশটা-পাঁচটার চাকরির বদলে বাড়ছে ব্যাবসার প্রবণতা। কিন্তু অনেকেই বুঝতে পারেনা কি ব্যবসা করবে তারা। কিভাবে ব্যবসা শুরু করলে সহজেই মিলবে সাফল্য। চিন্তা নেই সেরকমই এক ব্যবসার কথা নিয়ে আলোচনা করবো আজ। যেখানে ব্যবসা শুরুর দিন থেকেই দারুণ ইনকাম করা সম্ভব। খুব কম টাকা বিনিয়োগ করেই সম্ভব এই ব্যবসা শুরু করা শুধু তাই নয় এখানে মুনাফার পরিমাণও হবে বেশি। তেমনই একটি ব্যবসা হলো আইস-ক্রিম পার্লারের ব্যবসা।

এই প্রখর গ্রীষ্মের দেশে আইস্ক্রিম প্রেমীর সংখ্যাটা নেহাতই কম নয়। যেহেতু চাহিদা বেশি তাই এই ব্যবসাতে ক্ষতির সম্ভাবনা প্রায় নেই বললেই চলে। এমনকি এই দেশে শীতকালেও মানুষ লাইন দেয় আইসক্রিমের দোকানে। তাছাড়া সারা দেশের বিভিন্ন অনুষ্ঠানের একটু অবিচ্ছেদ্য অংশ হিসেবে আইসক্রিমের চাহিদা সর্বোপরে। বিয়েবাড়ি হোক কি অন্নপ্রাশন অথবা অন্য যেকোনো অনুষ্ঠান, আইস্ক্রিম চাই ই চাই। এমনকি শীতকালেও দারুন বিক্রি হয় আইসক্রিমের।

এবার আইস্ক্রিম পার্লার এর ব্যবসা শুরু করবেন কিভাবে?

আইসক্রিম পার্লার ব্যবসা শুরু করতে, প্রথমে আপনার প্রয়োজন শুধুমাত্র একটি ফ্রিজার আর বাড়ির মধ্যে দোকান করার মতো যদি একটি জায়গা থাকে তাহলে তো প্রথমেই বাজিমাত, কিন্তু যদি বাড়িতে ব্যবসার জন্য সঠিক জায়গা না থাকে তখন আপনি কোনো দোকান ভাড়া নিতেই পারেন। খেয়াল রাখবেন দোকানটি যেন জনবহুল এলাকার মধ্যেই হয়। এর জন্য আপনি কোনো বাস স্ট্যান্ড বা রেল স্টেশনের আশেপাশের জায়গা পছন্দ করতেই পারেন‌। এবং দোকানের আশেপাশের বিয়ে, জন্মদিন, কিটি পার্টি, অফিস পার্টির মতো বহু ইভেন্টে আইসক্রিম অর্ডার নিতে পারেন এবং সেখানে বাল্ক ডেলিভারি করে মোটা মুনাফা অর্জন করতে পারেন।

money rupee

এছাড়া আপনি যদি নিজে কোনও বড় ব্রান্ডের সাথেও যুক্ত হয়ে এই ব্যবসা শুরু করতে চান, তবে আমূল-এর ফ্র্যাঞ্চাইজির জন্য আবেদন করতেই পারেন। আইসক্রিম পার্লারের ব্যবসা করার জন্য আমূল ছাড়াও আরও কয়েকটি বড় আইসক্রিম কোম্পানিগুলি নিজেদের ফ্র্যাঞ্চাইজি দেয়, যেখানে আপনি ২০-২৫ শতাংশ পর্যন্ত কমিশন পেতে পারেন। প্রসঙ্গত গত কয়েক বছরে আইসক্রিম পার্লারের ব্যবসা বেড়েছে লাফিয়ে লাফিয়ে। FICCI -এর রিপোর্ট অনুযায়ী ২০২২ সালের মধ্যে দেশে আইসক্রিমের ব্যবসা আরও এগিয়ে যাবে।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button