ফের কপাল পুড়ল ঈশান, শ্রেয়সের! তাঁদের বাদ রেখে এই দুই প্লেয়ারকে চুক্তিতে নিল BCCI

আরও একবার উপেক্ষার পাত্র হলেন ঈশান কিষাণ, শ্রেয়স আইয়ার। সম্প্রতি বৈঠকে বসেছিল ভারতীয় ক্রিকেট নিয়ামক বোর্ড BCCI। আলোচনার পর দুই ক্রিকেটারকে কেন্দ্রীয় চুক্তির আওতায় নিয়ে আসার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বোর্ড কর্তারা। কিন্তু এই দুই ক্রিকেটার ঈশান কিংবা আইয়ার নন, অন্য কেউ।

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের সচিব জয় শাহ বারবার বলেছিলেন, জাতীয় দলের হয়ে খেলা না থাকলে ঘরোয়া ক্রিকেট খেলতে হবে সবাইকে। কিন্তু বোর্ডের এই নির্দেশকে বিশেষ আমল দেননি ঈশান কিষাণ, শ্রেয়স আইয়ার। যার ফল তাদের এখনও ভুগতে হচ্ছে। দুজনকেই বাদ দেওয়া হয়েছে বিসিসিআই-এর কেন্দ্রীয় চুক্তি থেকে। অনেকে আশা করছেন যে অদূর ভবিষ্যতে আবারও এই দুই ক্রিকেটারের সঙ্গে নতুন করে চুক্তি করবে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড। ভবিস্যতের কথা ভবিষ্যতেই জানা যাবে। কিন্তু দুজনের সুসময় যে এখনও আসেনি সেটা বুঝিয়ে দিল বিসিসিআই।

   

নতুন দুই ক্রিকেটারের সঙ্গে কেন্দ্রীয় চুক্তি সম্পন্ন করেছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড। এই দুই ক্রিকেটার সম্প্রতি ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে সিরিজে খুব ভালো খেলেছিলেন। ইংল্যান্ডকে ৪-১ ব্যবধানে হারিয়ে পাঁচ ম্যাচের সিরিজ জয় করেছে টিম ইন্ডিয়া। এই সিরিজের ভারতের হয়ে মোট পাঁচজন ক্রিকেটার অভিষেক করেছিলেন। যার মধ্যে দুজনকে দেওয়া হয়েছে পুরস্কার। বিসিসিআই তরুণ তুর্কিদের সঙ্গে সম্পন্ন করেছে কেন্দ্রীয় চুক্তি।

এই দুই ক্রিকেটার আর কেউ নন সরফরাজ খান এবং ধ্রুব জুরেল। দুজনেই ইংল্যান্ড সিরিজে প্রথম ভারতের হয়ে খেলার সুযোগ পেয়েছিলেন। বলা বাহুল্য সুযোগের সদ্বব্যবহার করেছেন সরফরাজ ও ধ্রুব। দেশের হয়ে প্রথমবার খেলতে নেমে দুই ক্রিকেটার করেছেন বড় রান।

সরফরাজ খানকে যে কেন্দ্রীয় চুক্তি দেওয়া হতে পারে সে সম্ভাবনার কথা আগে শোনা গিয়েছিল। তবুও ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে তিনি কেমন পারফর্ম করেন সে দিকে নজর ছিল বিসিসিআই কর্তাদের। ধ্রুব জুরেলের ক্ষেত্রেও একই কথা প্রযোজ্য। দুজনকে গ্রেড সি-এর চুক্তি পত্র দিয়েছে ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড।

ছোটোবেলা থেকে খেলাধুলোর প্রতি ভালোবাসা। এখন পেশা। বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে লিখছে বিগত কয়েক বছর ধরে।

সম্পর্কিত খবর