সর্বশ্রেষ্ঠ ভারতীয় চলচ্চিত্রের সম্মান পেল সত্যজিৎ রায়ের পথের পাঁচালী, ধারে কাছে নেই ‘Sholay”

FIPRESCI-ইন্ডিয়া (দ্য ইন্ডিয়ান চ্যাপ্টার অফ ইন্টারন্যাশনাল ফেডারেশন অফ ফিল্ম ক্রিটিকস, FIPRESCI) দ্বারা পরিচালিত একটি জরিপে সত্যজিৎ রায়ের (Satyajit Ray) 1955 সালের ক্লাসিক ‘পথের পাঁচালী’ (Pather Panchali) সিনেমাটিকে সর্বকালের সেরা ভারতীয় চলচ্চিত্রর খেতাব দেওয়া হয়েছে। ঋত্বিক ঘটকের 1960 সালের নাটক ‘মেঘে ঢাকা তারা’ দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে, এরপর তৃতীয় স্থানে রয়েছে মৃণাল সেনের ‘ভুবন শোম’ (1969)।

FIPRESCI ‘সর্বকালের দশটি সেরা ভারতীয় চলচ্চিত্র’-এর একটি তালিকা প্রকাশ করেছে, যার মধ্যে ভারতীয় চলচ্চিত্রের ইতিহাসে সমস্ত ভাষায় শীর্ষ 10টি চলচ্চিত্র রয়েছে। বিভূতিভূষণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের 1929 সালের একই নামের বাংলা উপন্যাস অবলম্বনে সত্যজিৎ রায়ের 1955 সালের ছবি পথের পাঁচালী ছবি বানিয়েছিলেন।

এটি ছিল অপু ট্রাইলজির প্রথম সিনেমা। সর্বকালের সবচেয়ে আইকনিক চলচ্চিত্রগুলির মধ্যে একটি হিসাবে বিবেচিত, ‘পথের পাঁচালী’তে নায়ক অপু এবং তার বড় বোন দুর্গার শৈশবের কষ্টগুলিকে তাদের দরিদ্র পরিবারের কঠোর গ্রামীণ জীবনের মধ্যে তুলে করা হয়েছিল। এর পরে ‘অপরাজিতা’ (1956) এবং ‘অপুর সংসার’ (1959)।

অদুর গোপালকৃষ্ণনের 1981 সালের মালায়ালাম ফিল্ম এলিপথায়াম, গিরিশ কাসারভাল্লির 1977 সালের ছবি ঘটশ্রাদ্ধ এবং এম.এস. সাথুর ‘গরম হাওয়া’ যথাক্রমে চতুর্থ, পঞ্চম এবং ষষ্ঠ অবস্থান দখল করেছে।

apu pather panchali

এই তালিকায় সত্যজিৎ রায়ের 1964 সালের ছবি ‘চারুলতা’-সপ্তম স্থানে রয়েছে। শ্যাম বেনেগালের 1974 সালের ছবি ‘অঙ্কুর’ অষ্টম স্থানে, গুরু দত্তের ‘প্যাসা’ (1954) এবং রমেশ সিপ্পির ‘শোলে’ (1975) যথাক্রমে নবম এবং দশম স্থান অধিকার করেছে।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button