রূপঙ্করের জন্য বয়কট করেছিল নেটিজেনরা, মুখ থুবড়ে পড়ল সেই ইসমার্ট জোড়ি! বড় ক্ষতি TRP-তে

বাংলা টেলিভিশন জুড়ে রয়েছে হরেক রকমের রিয়েলিটি শো। নাচে গানে আড্ডায় দর্শকদের মন মাতানো জন্য রয়েছে বেশ কিছু নন ফিকশন শো। তবে বাংলা টেলিভিশনের এই সমস্ত কিছুর চেয়ে খানিকটা আলাদা স্টার জলসার (Star Jalsha) ‘ইসমার্ট জোড়ি’ (Ismart Jodi)। বিভিন্ন রকমের শো হলেও, ইসমার্ট জোড়ি যেন তাদের চেয়ে অনেকটাই আলাদা। বিনোদন জগতের বিভিন্ন তারকারা আসেন সেখানে, এবং তাদের নিয়ে বিভিন্ন প্রকার খেলা হয়। এর আগে এই শো এর ফরম্যাট নিয়ে আপত্তি তুললেও, কিছুদিন আগে রুপঙ্কর বাগচীকে (Rupankar Bagchi) এই শো এ ডেকে মারাত্মক ভুল করেন তারা।

আসলে সেই সময় কেকে-কে কটাক্ষের কারণে আপামর বাঙালি রূপঙ্করকে নিয়ে ক্ষুব্ধ। তখুনি বাগচী দম্পতিকে ডেকে আরো ভুল করে বসেন এই শো এর নির্মাতারা। দর্শকরা ডাক দেন ওই শো বয়কট করার জন্য। মরার ওপর খাঁড়ার ঘা রূপে যোগ হয় জি বাংলায় সারেগামাপা (SaReGaMaPa) এর নতুন সিজন। দর্শকরা বয়কটের দাবি তোলার পর জি বাংলার এই শো যেন পিষে দেয় স্টার জলসার ওই শো এর জনপ্রিয়তা। সরেগামাপা এর নতুন সিজন শুরু হতেই TRP তালিকায় পয়লা নম্বরে চলে এসেছে তারা।

মাত্র ২ সপ্তাহ হলো জি বাংলার এই জনপ্রিয় শো এর নতুন সিজন এসেছে আর তাতেই তারা ৬.৪ নম্বর নিয়ে রয়েছে শীর্ষে। তবে দ্বিতীয় নাম্বার স্থানও নিতে পারেনি ইসমার্ট জোড়ি, তারা মাত্র ৩.৭ নম্বর নিয়ে রয়েছে তৃতীয় স্থানে। দ্বিতীয় স্থানে জি বাংলারই দিদি নাম্বার ওয়ান রয়েছে ৪.৯ নম্বর নিয়ে। তবে সবচেয়ে খারাপ পারফরম্যান্স রান্নাঘর-এর, তারা মাত্র ১.০ নম্বর পেয়ে তালিকার একদম নীচে রয়েছে।

rupankar bagchi

আসলে দাদাগিরি শুরু হলে সেই জায়গা দখল করার ক্ষমতা কারোরই থাকেনি। জি বাংলার ওই রিয়েলিটি শো আক্ষরিক অর্থেই দাদাগিরি চালাতো TRP তালিকায়। সিজন শেষ হলে ইসমার্ট জোড়ি কিছুটা আশার আলো দেখলেও সারেগামাপা শুরু হওয়ায়, দাদাগিরির সেই স্থান দখল করে নেয় তারা। এসবের মাঝে আবার রূপঙ্করকে নিয়ে বিতর্কে নাম জুড়ে যাওয়ায় শো বয়কটের দাবি তোলেন দর্শকরা। যদিও শো এর নির্মাতাদের তরফ থেকে কোনো বিবৃতি আসেনি এখনো, তবে দর্শকদের ইসমার্ট জোড়ির প্রতি অনীহাতে আপাতত TRP বাড়ার কোনো লক্ষণ নেই।

 

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button