খরচ অনেক কম! কত হবে বুলেট ট্রেনের ভাড়া? জানিয়ে দিলেন রেলমন্ত্রী

বুলেট ট্রেন নিয়ে দেশবাসীর মাতামাতির শেষ নেই। কবে এই ট্রেনের চাকা গড়াবে? তার অপেক্ষায় রয়েছেন মানুষ। এই বুলেট ট্রেন চালু হলে আন্তর্জাতিক মঞ্চে ভারতের স্থান যে আরও বড় হয়ে যাবে তা আর নতুন করে বলার অপেক্ষা রাখে না নিশ্চয়ই। আপনিও কি এই ট্রেনে ওঠার জন্য মুখিয়ে রয়েছেন? কিন্তু জানেন কি এই ট্রেনের ভাড়া কত হবে?

সম্প্রতি কবে বুলেট ট্রেন চলবে দেশে সেই বিষয়ে বড় মন্তব্য করেন রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণব। রেলমন্ত্রীর মতে, সেই দিনটা আর বেশি দূরে নয় যেদিন ভারতবাসী বুলেট ট্রেনে ওঠার মতো অভিজ্ঞতা লাভ করবেন। হ্যাঁ ঠিকই শুনেছেন। এক অনুষ্ঠানে রেলমন্ত্রী জানান, ‘আর মাত্র ২ বছর পর দেশে বাস্তবে রূপ নেবে বুলেট ট্রেনের স্বপ্ন। অর্থাৎ ২০২৬ সালের মধ্যেই দেশবাসী বুলেট ট্রেনে উঠতে পারবেন। আমাদের প্রস্তুতি খুব দ্রুত চলছে এবং ২০২৬ সালে বুলেট ট্রেন চালানো হবে।’

   

সময়ের সঙ্গে সঙ্গে ভারতীয় রেলে যে পরিবর্তন আসছে তার দিকে ইঙ্গিত করে রেলমন্ত্রী বলেন, মোদী সরকারের সবচেয়ে বড় লক্ষ্য হল যাত্রীদের নিরাপত্তা। প্রথমে লক্ষ্য নিরাপদ ভ্রমণ এবং তারপরে সুযোগ-সুবিধা সম্প্রসারণ। এদিকে এই ট্রেনের ভাড়াই বা কত হবে এবার সেটা নিয়ে জানা গেল নতুন তথ্য। রেলমন্ত্রীর কাছে বুলেট ট্রেনের ভাড়া সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, বিমান ভাড়ার চেয়ে বুলেট ট্রেনের ভাড়া অনেক কম হবে।

অশ্বিনী বৈষ্ণব জানিয়েছেন, মুম্বই-আহমেদাবাদ করিডরের জন্য ৮টি নদীর উপর সেতু নির্মাণের কাজ শেষ হয়েছে। এই প্রকল্পের খরচ প্রায় ১,০৮ লক্ষ কোটি টাকা। এর মধ্যে ১০ হাজার কোটি টাকা খরচ করছে কেন্দ্রীয় সরকার। একই সঙ্গে মহারাষ্ট্র ও গুজরাট সরকার দেবে ৫ হাজার কোটি টাকা। বাকি অর্থায়ন জাপান থেকে ঋণ নিয়ে করা হচ্ছে। এর সুদের হার মাত্র ০.১%।

বিগত ৭ বছর ধরে সাংবাদিকতার পেশার সঙ্গে যুক্ত। ডিজিটাল মিডিয়ায় সাবলীল। লেখার পাশাপাশি বিভিন্ন ধরনের বই পড়ার নেশা।

সম্পর্কিত খবর