মোবাইলের সিগন্যালের মতোই তার ছাড়া বাড়ি বাড়ি পৌঁছে যাবে বিদ্যুৎ! সফল বৈজ্ঞানিকদের প্রচেষ্টা

ধীরে ধীরে উন্নতি ঘটছে বিজ্ঞান ব্যবস্থার। সময়ের সাথে সাথে বদলাচ্ছে সবই, বিজ্ঞানের নিত্যনুতন আবিষ্কারে পুরনো জিনিস ফেলে দিয়ে আসছে নতুন সব প্রযুক্তি। বর্তমান যুগে সবথেকে অপরিহার্য জিনিস হল বিদ্যুৎ। ইলেকট্রিসিটি ছাড়া টিভি, ফ্রিজ, এসি, স্মার্টফোন বা আরো অন্যান্য গৃহস্থালির সবকিছুই অকেজো। এজন্য বর্তমান দিনে বিজ্ঞানের সবচেয়ে বড় আবিষ্কারের মধ্যে ইলেকট্রিসিটি অন্যতম। কিন্তু বড় বড় লম্বা তারের কারণে ইলেকট্রিসিটি সরবরাহ বেজায় সমস্যা। কিন্তু আমরা যদি আপনাদের বলি যে, এবার মোবাইল টাওয়ারের মতো ইলেকট্রিসিটি বড় বড় টাওয়ার লাগিয়ে দিলেই তা এক জায়গা থেকে আরেক জায়গায় পরিবহন সম্ভব, তাহলে কেমন লাগবে?

ভাবতে অবাক লাগলেও ভবিষ্যতে এই এত্ত এত তারের ঝামেলা আর থাকবেনা। এটা সিস্টেমটি অনেকটা মোবাইল নেটওয়ার্কের মত কাজ করবে। জানা যাচ্ছে এই বিষয়ে বিজ্ঞানীদের গবেষণা অনেকদিন থমকে থাকলেও এখন সফল হয়েছে। আসলে সর্বপ্রথম এইরকম ভাবনা চিন্তা করেন সার্বিয়ার বিজ্ঞানী নিকোলাস টেসলা। কিন্তু এই সিস্টেমের গবেষণা বেশিদিন চালানো সম্ভব হয়নি তার পক্ষে। তিনি এজন্য আবিষ্কার করেন টেসলা কয়েল। তবে তার অকালমৃত্যুতে এই গবেষণা থমকে যায় বহু বছর। এরপর এই নিয়ে গবেষণা এগোতে পারেনি কাঙ্ক্ষিত গতিতে।

তবে বর্তমানে বিজ্ঞানী মহল জানিয়েছে যে, প্রযুক্তিটির ওপর তারা আরো কিছু দূর এগোতে পেরেছেন। কোনো তার ছাড়াই টেসলা কয়েলের সাহায্যে বিদ্যুৎ পাঠানো সম্ভব হয়েছে। এই গবেষণা করা হয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নেভাল রিসার্চ ল্যাবে। সেখানে গবেষণারত বিজ্ঞানীরা টেসলা কয়েলের মতোই একটি কয়েল তৈরি করেছেন, যার দ্বারা ১কিমি দূরে মোট ১.৬ কিলো ওয়াট বিদ্যুৎ পাঠাতে সক্ষম হয়েছেন তারা। তবে এই পুরো পদ্ধতিতে নতুন কিছু যোগ করেননি তারা, টেসলার নীতি অনুযায়ী করা হয়েছে পুরোটা।

আসলে টেসলা বিদ্যুত পরিবহনের জন্য প্রথমে বিদ্যুৎকে মাইক্রোওয়েভে রূপান্তরিত করেন। এরপর তাকে অপর প্রান্তে থাকা রিসিভারের জন্য একটি নির্দিষ্ট বিমে ফোকাস করা হয়। সেখানে উপস্থিত থাকে একটি এক্স ব্যান্ডের ডাইপোল অ্যান্টেনা, এরপর যখন এই মাইক্রোওয়েভ গুলি অ্যান্টেনার সংস্পর্শে আসে তখন তারা আবার মাইক্রোওয়েভ থেকে বিদ্যুতে পরিণত হয়। এভাবে সম্ভব হয় বিদ্যুতের পরিবহন। বস্তুত এই পরীক্ষা সফল হলে অনেক সুবিধা হয়ে যাবে সারা বিশ্বে। ওয়াইফাই এর মত বাড়িতে বাড়িতে পৌঁছে যাবে বিদ্যুৎ।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button