রূপশ্রী অতীত, এবার ২৫০০০ টাকা দেবে রাজ্য সরকার! রেশন কার্ড থাকলে এভাবে মিলবে সুবিধা

মেয়েদের স্বনির্ভর করার জন্য দেশে অনেক প্রকল্প চালানো হচ্ছে। এই প্রকল্পগুলি কেন্দ্রীয় (Central Government) ও রাজ্য সরকার (State Government) দ্বারা পরিচালিত হয়। দেশের মেয়েদের পাশে দাঁড়াতে বিভিন্ন রাজ্য সরকার থেকে শুরু করে কেন্দ্রীয় সরকার বেশ কিছু প্রকল্প চালাচ্ছে। সরকারের তরফে দেওয়া হচ্ছে আর্থিক সাহায্য।

এবার তেমনই আরো এক প্রকল্প এনে চমকে দিল রাজ্য সরকার। আর এই প্রকল্পের সুবিধা যাবেন শুধুমাত্র মেয়েরাই। হ্যাঁ ঠিকই শুনেছেন একদম। মেয়েদের পড়াশোনার যিনি মূলত রাজ্য সরকার এক ধাক্কায় বছরে ২৫,০০০ টাকা করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। অনেক পরিবারই আছে যারা আর্থিক অস্বচ্ছলতার কারণে মেয়ে সন্তানকে পড়াশোনা করাতে ব্যর্থ হন। তবে এবার এই টাকার কারণে এখন সেই চিন্তা দূর হতে চলেছে সকলের বৈকি।

   

এই পর্বে উত্তরপ্রদেশের যোগী সরকার (Yogi Adityanath) কন্যা সুমঙ্গলা যোজনা (Kanya Sumangala Yojana) শুরু করেছে। এই প্রকল্পের মাধ্যমে যেখানে আগে কন্যাদের সরকারি সাহায্য বাবদ ১৫ হাজার টাকা দেওয়া হত, এখন সেই টাকার পরিমাণ বাড়ানো হয়েছে। এই প্রকল্পের মাধ্যমে সরকারের পক্ষ থেকে মেয়েদের ২৫ হাজার টাকা দেওয়া হচ্ছে।

কন্যা সুমঙ্গলা যোজনার সুবিধা একমাত্র উত্তরপ্রদেশের বাসিন্দারাই নিতে পারবেন।
এই প্রকল্পে আবেদনকারীর একটি স্থায়ী বসবাসের শংসাপত্র থাকা প্রয়োজন। আধার কার্ড, ভোটার আইডি কার্ড, বিদ্যুৎ বা টেলিফোন বিল, রেশন কার্ড (Ration Card) রেসিডেন্স সার্টিফিকেট হিসাবে ব্যবহার করা যেতে পারে।

stp money

এক্ষেত্রে একটি বিষয় মাথায় রাখা জরুরী। যারা এই প্রকল্পের জন্য আবেদন করবেন সেই পরিবারের সর্বোচ্চ আয় ৩ লক্ষ টাকার বেশি হওয়া উচিত নয়। আপনি পরিবারে সর্বাধিক ২ জন কন্যার নামে এই প্রকল্পের সুবিধা নিতে পারেন। আপনি যদি কন্যা সুমঙ্গলা যোজনার জন্য আবেদন করতে চান তবে প্রথমে আপনাকে ইউপি সরকারের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে যেতে হবে, যেটি হল sky.up.gov.in।

এবার হোম পেজে সিটিজেন সার্ভিস পোর্টালে ক্লিক করতে হবে। এখানে একটি ফর্ম আসবে, যেখানে নাম, ঠিকানা, মোবাইল নম্বর, পিতামাতার নাম, আধার নম্বরের মতো তথ্য পূরণ করতে হবে।
ফর্ম ফিলাপ করার পর সাবমিট বাটনে ট্যাপ করতে হবে। এবার রেজিস্টার মোবাইল নম্বরে একটি ওটিপি পাবেন। এই ওটিপি লিখতে হবে। এর সাথে, এই প্রকল্পের জন্য আপনার অনলাইন নিবন্ধন সম্পূর্ণ হবে। একটি ইউজার আইডি এবং পাসওয়ার্ড তৈরি করার পরে, আপনাকে আবার অ্যাকাউন্টে লগ ইন করতে হবে। এখন নথি আপলোড করে জমা দিতে হবে।

বিগত ৭ বছর ধরে সাংবাদিকতার পেশার সঙ্গে যুক্ত। ডিজিটাল মিডিয়ায় সাবলীল। লেখার পাশাপাশি বিভিন্ন ধরনের বই পড়ার নেশা।

সম্পর্কিত খবর