মাত্র ৩৩৩ টাকা বিনিয়োগেই লাখপতি! বাজার কাঁপাচ্ছে পোস্ট অফিসের এই দুর্দান্ত স্কিম

যারা কম ঝুঁকি সহ বিনয়গ করে মুনাফা করতে আগ্রহী, তারা পোস্ট অফিস দ্বারা প্রকাশিত স্কিমগুলির কথা ভেবে দেখতে পারেন৷ অতি কষ্টে সঞ্চয় করা অর্থ নিরাপদ হাতে রাখতে চান সবাই। পোস্ট অফিস ক্ষুদ্র সঞ্চয় প্রকল্পগুলি দীর্ঘমেয়াদে সাধারণ মানুষের জন্য অনেক সাহায্য করে। অত্যন্ত লাভজনক স্কিম চালু রয়েছে পোস্ট অফিসে। এই প্রকল্পে আপনার অর্থ পোস্ট অফিসে সম্পূর্ণ নিরাপদ থাকবে সুতরাং, আপনি কোনও ঝুঁকি ছাড়াই এতে আপনার অর্থ বিনিয়োগ করতে পারেন এবং আপনার ও আপনার পরিবারের ভবিষ্যত সুরক্ষিত করতে পারেন।

মধ্যবিত্ত সমাজের কাছে টাকা জমা রাখার ভালো অপশন হচ্ছে পোস্ট অফিস। এর বিভিন্ন প্রকল্পে মেলে ভালো রিটার্ন আর তার সাথে রয়েছে নিরাপত্তা। পোস্ট অফিসের সেভিংস স্কিমে আপনি প্রতিদিন মাত্র ৩৩৩ টাকা বিনিয়োগ করে ম্যাচিউরিটি হলে ১৬ লক্ষ টাকা পর্যন্ত রিটার্ন পেতে পারেন। স্পষ্টতই বোঝা যায় যে এটি একটি লাভজনক স্কিম। এখনও পর্যন্ত বহু মানুষ এই স্কিমে বিনিয়োগ করেছেন।

এরকম একটি স্কিম হল পোস্ট অফিস রিকারিং ডিপোজিট অ্যাকাউন্ট অর্থাৎ RD। পোস্ট অফিসের রেকারিং ডিপোজিট স্কিমে ন্যুনতম একশো টাকা থেকে বিনিয়োগ করতে পারবেন গ্রাহকরা। শুধু তাই নয়, অ্যাকাউন্ট খোলার এক বছরের মধ্যে ডিপোজিট ব্যালেন্সের ৫০ শতাংশ পর্যন্তই তুলে নেওয়া যাবে। মাসিক ইনস্টলমেন্টের কোনও সীমা নেই এই স্কিমে। তবে প্রতি মাসে ন্যুনতম ১০০ টাকা জমা দিতে হবে। বর্তমানে, আমানতকারী এই স্কিমে ৫.৮ শতাংশ হারে চক্রবৃদ্ধি সুদ পাবেন।

পোস্ট অফিস স্কিমে আপনি যদি প্রতিদিন ৩৩৩ টাকা জমা করেন অর্থাৎ প্রতি মাসে প্রায় ১০ হাজার টাকা জমা করেন, তাহলে এক বছরে আপনার মোট বিনিয়োগ হবে ১.২০ লক্ষ টাকা। এই অ্যাকাউন্টটি ১০ ​​বছর চালানোর পরে, আপনার মোট জমার পরিমাণ হবে ১২ লক্ষ টাকা। এর সাথে, ১০ বছরে, আমানতকারীর প্রাপ্ত সুদের পরিমাণ হবে ৪,২৬,৪৭৬ টাকা, এই হিসেবে আমানতকারী ১৬ লাখ টাকারও বেশি আয় করতে পারবেন।

money rupee

রেকারিং ডিপোজিটের মোট সময়কাল ৫ বছর হলেও আমানতকারী চাইলেই তাকে পরবর্তী ৫ বছরের জন্য বাড়াতে পারেন। তবে বিনিয়োগের আগে মাথায় রাখতে হবে বেশকিছু বিষয়। প্রথমত, প্রতি মাসে ডিপোজিট ভুললে চলবে না। টানা ৪ মাস কোনও ইনস্টলমেন্ট জমা না পড়লে সেই অ্যাকাউন্টটি বন্ধ করে দেওয়া হবে। তবে টেনশনের কিছু নেই। আমানতকারী চাইলেই আবার ২ মাসের মধ্যে পুনরুদ্ধার করতে পারবেন। তবে আমানতকারীকে প্রতিমাসে ১ শতাংশ পেনাল্টি দিতে হবে এক্ষেত্রে।

এইসব ক্ষেত্রেই সাধারণ ব্যাঙ্কের থেকে সুদের হার বেশি থাকে পোস্ট অফিসের। সেই কারণেই পোস্ট অফিসের বিভিন্ন স্কিমের জনপ্রিয়তা রয়েছে গ্রাহকদের মনে।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button