এই ভারতীয়র ব্যাট চললে ‘বাবর অ্যান্ড কোম্পানি” ধুলোয় মিশে যাবে! দাবি প্রাক্তন পাকিস্তানি প্লেয়ারের

এশিয়া কাপ টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টে ২৮ আগস্ট মুখোমুখি হবে ভারত ও পাকিস্তান। এ জন্য দুই দলই জোর প্রস্তুতি নিচ্ছে। গত বছর টি-টোয়েন্টি ওয়ার্ল্ডে পাকিস্তানের কাছে ১০ উইকেটের হারের স্মৃতি এখনও ভারতের মনে তাজা হয়ে আছে। এখন এমন পরিস্থিতিতে এশিয়া কাপে সেই হারের প্রতিশোধ নিতে চাইবে রোহিত শর্মার দল। এশিয়া কাপের জন্য দলে ভারতের সব সিনিয়র খেলোয়াড়কে বেছে নিয়েছে বিসিসিআই। গত বছর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে খেলা খেলোয়াড়দের বেশিরভাগই রয়েছেন এই দলে। এমন পরিস্থিতিতে ভারতীয় ভক্তদেরও টিম ইন্ডিয়ার কাছ থেকে অনেক আশা থাকবে।

তবে ভারতীয় দলে বিরাট কোহলির ফর্ম অবশ্যই চিন্তার বিষয়। গত প্রায় তিন বছর ধরে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সেঞ্চুরি করতে পারেননি তিনি। বেশ কিছুদিন ধরেই বিরাটের ফর্ম আলোচনার বিষয়। টি-টোয়েন্টিতে তাকে দল থেকে বাদ দেওয়ার দাবিও করছেন অনেকে। একই সঙ্গে পাকিস্তানের বিপক্ষে এই তারকা ব্যাটারকে রান করতেও দেখতে চান অনেক ভক্ত। গত বছর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও যখন সব ভারতীয় ব্যাটসম্যান পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ফ্লপ ছিল্বন, তখন বিরাট হাফ সেঞ্চুরি করেছিলেন।

পাকিস্তানের প্রাক্তন স্পিনার দানিশ কানেরিয়া তার দলকে বিরাট সম্পর্কে সতর্ক করেছেন এবং তাকে হালকাভাবে না নিতে বলেছেন। কানেরিয়া বলেছেন যে, এশিয়া কাপ বিরাটের ফর্মে ফেরার একটি দুর্দান্ত সুযোগ এবং এর পরে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপও খেলা রয়েছে। কানেরিয়া বলেছেন, বিরাট যদি নিজেকে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দলে দেখতে চান তাহলে এশিয়া কাপে তাকে বড় স্কোর করতে হবে। যেভাবেই হোক তাঁকে ভালো পারফর্ম করতে হবে।

কানেরিয়া তার ইউটিউব চ্যানেলে বলেছেন, আপনি কোনও বোঝা নিয়ে ভ্রমণ করতে পারবেন না। এরপর তাকে বেঞ্চে বসানো আরও কঠিন। পাকিস্তানকে বোঝাতে হবে যে বিরাট কোহলির খারাপ ফর্ম অব্যাহত রয়েছে। বিরাট যদি তার ফর্মে ফিরে আসেন, তাহলে তিনি পাকিস্তানের জন্য সমস্যা তৈরি করতে পারেন। ফর্মে ফিরলে যেকোনো দলের জন্যই হুমকি হয়ে উঠবেন তিনি।

পাকিস্তানের তারকা ফাস্ট বোলার শাহীন আফ্রিদির ফর্ম নিয়েও কথা বলেছেন কানেরিয়া। আফ্রিদি বর্তমানে হাঁটুর আঘাতের সঙ্গে লড়াই করছেন এবং এশিয়া কাপে তার খেলা নিয়ে সংশয় রয়েছে। গত বছর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে আফ্রিদি ভারতের জন্য সবথেকে বড় হুমকি ছিলেন এবং তার প্রথম দুই ওভারে রোহিত শর্মা এবং কেএল রাহুল প্যাভিলিয়নে ফিরেছিলেন। কানেরিয়া বলেছেন, শাহীনের ফর্ম এখনও আছে, তবে আগেই বলেছি তার প্রতিটি ম্যাচ খেলা উচিত নয়।

danish kaneria

কানেরিয়া বলেছেন,  এত খেলা তাকে অযোগ্য হওয়ার ঝুঁকিতে ফেলেছে। পাকিস্তান দলের সঙ্গে সদ্য নেদারল্যান্ডসে গেছেন তিনি। তার ফিটনেস দেখার বিষয় হবে। শাহীন এশিয়া কাপ থেকে বাদ পড়লে পাকিস্তানের জন্য দুঃসংবাদ। অন্যদিকে, এটি ভারতের জন্য আনন্দের বিষয় হবে। এশিয়া কাপে টপ অর্ডারে নতুনত্বের সুযোগ থাকবে ভারতের। পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ম্যাচে রোহিতের সঙ্গে ওপেন করতে পারেন ঋষভ পন্ত। শুরুতে উইকেট নেওয়ার জন্য পাকিস্তান নির্ভর করে শাহীনের ওপর। এমন পরিস্থিতিতে শাহীনের কাঁধেই দায়িত্ব থাকবে ভারতকে ভাঙার।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button