দু’হাত ঢেলে দিয়েছে প্রকৃতি! ডুয়ার্স-দার্জিলিং ছেড়ে ঘুরে আসুন বাংলার এই গ্রামে, হারিয়ে যাবেন রূপে

ধীরে ধীরে মানুষ মধ্যে তথাকথিত বিখ্যাত জায়গায় ঘোরার থেকে অফবিট স্থানগুলোকে বেশি প্রেফার করছে। এছাড়া মানুষের হাতে সময় কমে আসায় ঘোরাঘুরির পিছনে বেশী সময় নষ্ট করতে চাননা সাধারণ মানুষ। কিন্তু দিন দু’য়েকের ছুটি পেলে কোথায় ঘুরে আসা যায়? চলুন আমরা এক দারুণ জায়গার ব্যাপারে জানাবো।

ভ্রমণ পিপাসুদের জন্য আমরা আজ প্রকৃতির সুন্দরতা দিয়ে পরিপূর্ন সুন্দরী পুরুলিয়ার (Purulia) কথা জানাতে চলেছি। আজকে যে জায়গা সম্বন্ধে বলবো সেটা হলো ‘দুয়ারসিনি’। পুরুলিয়া থেকে ২০ কিমি দূরে এই ‘দুয়ারসিনি’। গাড়ি অথবা বাসের মাধ্যমে সেখানে পৌঁছে যাবেন আপনি।

   

প্রকৃতির ছিমছাম পরিবেশের মধ্যে কয়েকটি কটেজ রয়েছে। সেখানে আদিবাসী গ্রামের মধ্যে ঘুরে বেড়ানোর সময় এক অনন্য অভিজ্ঞতার সাক্ষী হবেন আপনি। সামনের জঙ্গলে বন্য শূকর, ভল্লুক, হরিণ, হাতির মতো প্রাণী রয়েছে।

নদী অরণ্যে নিরালা সময় কাটাতে চলে যান দুয়ারসিনি2

উল্লেখ্য, এখানে রয়েছে ঝাড়গ্রাম থেকে দুমলা রেঞ্জ পর্যন্ত হাতি পারাপারের ‘এলিফ্যান্ট করিডর’। ভাগ্য ভালো থাকলে দেখা পেতে পারেন কিছু বন্যপ্রাণীর। এছাড়া মাত্র ৩ কিমি দূরেই পাহাড় রয়েছে। আপনি চাইলেই ট্রেকিং করতে পারবেন।

নদী অরণ্যে নিরালা সময় কাটাতে চলে যান দুয়ারসিনি3

প্রসঙ্গত আপনি দুয়ারসিনিতে পঞ্চপাণ্ডব টিলা, বুরুডি লেক, ধারাগিরি ফলসের মতো স্থান ছাড়াও দেখতে পাবেন বিভূতিভূষণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের বাড়ি ‘গৌরীকুঞ্জ’। একদিন ঘুরে আসুন এই মনোরম স্থান থেকে। মাথাপিছু মাত্র ২০০০ থেকে ২৫০০ খরচ হবে, কিন্তু অভিজ্ঞতা হবে দারুণ।

সম্পর্কিত খবর