দিঘা, পুরী অতীত! শীতের ছুটিতে সামান্য খরচে ঘুরে আসুন এই সি-বিচ! হারিয়ে যাবেন সৌন্দর্যে

দৈনন্দিন জীবনের ব্যস্ততার মধ্যে এক ঘেঁয়েমি কাটিয়ে তোলার জন্য কাছেপিঠে কোথাও ঘুরে আসতে পারলে দারুণ হয়। ব্যস্ত জীবনের মাঝে কখনো কখনো সমুদ্র যেন আমাদের হাতছানি দিয়ে ডাকে আবার কখনো পাহাড়ের নির্জনতায় হারিয়ে যেতে মন চায়।

কিন্তু বাঙালির কাছে ঘুরতে যাওয়া মানেই সেই একই দিঘা, পুরী, দার্জিলিং। এরও বাইরে অনেক স্থান রয়েছে, কিন্তু সেইসমস্ত জায়গায় আর তেমন যাওয়া হয়ে ওঠে না। আজকে আপনাদের জানাবো বাগদা বিচ সম্পর্কে। সেখানে খুবই কম খরচে মন ভরে আনন্দ নিতে পারবেন ওই জায়গার। তো চলুন জেনে নিই কেমন সেই জায়গা। কীভাবেই বা যাবেন সেখানে।

যাবেন কীভাবে: আপনার যাত্রা শুরু হবে হাওড়া থেকে। এজন্য আপনাকে ধরতে হবে ফলকনামা এক্সপ্রেস। সেখানে আপনি ৩ ঘন্টা পরেই পৌঁছে যাবেন ওড়িশার বালাসরে। এরপর আপনাকে গাড়ি ভাড়া করে পৌঁছাতে হবে বাগদা বিচ। গাড়িতে অবশ্য খুব বেশি সময় লাগবে না, মাত্র ১ ঘন্টা ১৫ মিনিট এর রাস্তা অতিক্রম করলেই পৌঁছে যাবেন আপনার গন্তব্যে। এখানের বিশেষত্ব হলো সেখানে গিয়ে আপনি থাকতে পারেন এক অপূর্ব বিচ ক্যাম্প এ, যার নাম হলো “My eco camp”।

অনেক সময় বাইরে বেড়াতে গিয়ে সেখানের খাবার নিয়ে সমস্যায় পড়তে হয় যাত্রীদের। কিন্তু আর না, বাগদা বিচ ঘুরতে যাওয়া বাঙালিদের জন্য সুবিধার হলো যে, ওখানে আপনারা পুরোপুরি বাঙালি খাবারই পেয়ে যাবেন। ঘরোয়া খাবারের সাথে সমুদ্রের হওয়া উপভোগ করতে করতে এক অসাধারণ পরিবেশের মধ্যে মিলিয়ে যেতে পারবেন।

তবে শুধু সমুদ্রের সৌন্দর্যই না, আপনি সেখানে দেখতে পাবেন পাহাড়ি সৌন্দর্যও। সমুদ্রের গর্জনের সাথে মিশে যাবে পাহাড়ের হিম শীতল হাওয়া। দুইয়ের মিশেলে এক জমকালো পরিবেশের সাক্ষাৎ হবে আপনার। বাগদা বিচ ঘুরতে এলে আপনার এক যাত্রায় দুই ফল অর্থাৎ সমুদ্র আর পাহাড়, একই সাথে ঘোরা হয়ে যাবে।

131094353 106290724696116 7680226728394704933 n

খরচ কত :
১) টেন্ট- ১৫০০ টাকা প্রতি জন (৪ বার খাবারের ব্যবস্থা সহ)
২) কমন বাথ কটেজ- ১৪০০ টাকা প্রতি জন।
৩) অ্যাটাচ বাথ- ১৮০০ টাকা জন প্রতি। খাওয়ার টাকা দিতে হবেনা আলাদা করে। অপনার সাথে বাচ্চা থাকলে তার জন্য ৫০% টাকা দিলেই হবে ।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button