ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড়, মুখ গোমরা আকাশের! দক্ষিণবঙ্গের ৬ জেলায় বৃষ্টির ইঙ্গিত, IMD আপডেট

নতুন মাস পরে গিয়েছে। অর্থাৎ এসে গিয়েছে ডিসেম্বর (December) মাস। ডিসেম্বর মাস মানেই মানুষ সচরাচর বোঝেন ঠান্ডা কনকনে ঠান্ডা আবহাওয়া থাকবে। শীতের আমেজ গায়ে মেখে দেদার চলবে আড্ডা, খাওয়া দাওয়া, ভ্রমণ ইত্যাদি। কিন্তু চলতি বছরে শীত যেন অতীত হয়ে গিয়েছে।

kol megh

   

বরং নতুন বছরের শুরু থেকেই এক ঘূর্ণিঝড়ের (Cyclone) আতঙ্কে কাঁটা হয়ে গিয়েছেন কার্যত সকলে। সাগরে ইতিমধ্যে ফুঁসতে শুরু করেছে ঘূর্ণিঝড় মিগজাউম (Michaung)। ইতিমধ্যে এই সাইক্লোনকে ঘিরে একাধিক রাজ্যে চরম সতর্কতা জারি করা হয়েছে। এমনকি জায়গায় জায়গায় স্কুল, কলেজ, অফিস বন্ধ রাখার অবধি নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এদিকে বাংলায় (West Bengal) এই ঘূর্ণিঝড়ের তেমন প্রভাব পড়বে না বলে আগেই সাফ জানিয়ে দিয়েছিল আলিপুর আবহাওয়া দফতর। যদিও রবিবারের বিকেলে আচমকাই যেন মুড বদল হল আবহাওয়ার। কলকাতা (Kolkata) শহর থেকে শুরু করে দক্ষিণবঙ্গের (South Bengal) একের পর এক জেলার আকাশের মুখ ভার। তবে কি বৃষ্টি হবে? ইতিমধ্যে প্রশ্ন তুলতে শুরু করেছেন মানুষজন।

জানা গিয়েছে, ইতিমধ্যে শক্তি বৃদ্ধি করে দ্রুত গতিতে তামিলনাড়ু ও অন্ধ্র উপকূলের দিকে ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ‘মিগজাউম’। সোমবার তামিলনাড়ু ও অন্ধ্র উপকূলে এই ঘূর্ণিঝড় অতিক্রম করবে বোলে পূর্বাভাস মিলেছে। শুধু তাই নয়, এই ঘূর্ণিঝড়ের কারণে বাতাসের সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ১০০ কিলোমিটার হওয়ার ইঙ্গিত অবধি মিলেছে। যদিও এরই মাঝে বাংলার আবহাওয়ার এহেন আচমকা রদবদল কীসের ইঙ্গিত দিচ্ছে তা নিয়ে ইতিমধ্যে প্রশ্ন উঠতে শুরু করে দিয়েছে।

rain

এদিকে বিগত কিছুদিন ধরেই রাতের হোক বা দিনের তাপমাত্রা কার্যত বেড়েই চলেছে। আজকের আবহাওয়া থেকে অনেকেই বলছেন হয়তো বৃষ্টি হবে। তবে এই নিয়ে আলিপুর আবহাওয়া দফতর কিছু জানায়নি। যদিও আগামীকাল সোমবার থেকে বাংলার আবহাওয়ার পরিবর্তন হবে বলে জানিয়েছে হাওয়া অফিস। বজ্রবিদ্যুৎসহ হালকা বৃষ্টির সম্ভাবনা বেশ কিছু জেলাতে। যেমন মঙ্গলবার থেকে বৃহস্পতিবার, বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে কলকাতা, দুই ২৪ পরগনা, দুই মেদিনীপুর, বাঁকুড়া, পুরুলিয়ায়।

সম্পর্কিত খবর