এই স্টকে বিনিয়োগের আগে সাবধান! এক সপ্তাহে ১০০০ কোটি টাকা হারিয়েছেন রাকেশ ঝুনঝুনওয়ালা

একের পর এক গ্লোবাল ইভেন্টে ছাপ পড়েছে অর্থনৈতিক ব্যবস্থায়। ক্রমর্ধমান মুদ্রাস্ফীতির সাথে যোগ হয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সুদের ওপর হার বাড়ানো। একের পর এক আঘাতে ভারতীয় স্টকগুলির প্রচণ্ড ধাক্কা খাওয়ায় বাজার কিছুটা নিম্নগামী। অনেকেই আসন্ন মন্দার সময়ে নিজের স্টক বিক্রি করে দিতে চাইছেন। কিন্তু এসবের মধ্যে আবার ডলারের সাপেক্ষে টাকার দাম পড়ে যাওয়ায় মরার ওপর খাঁড়ার আঘাত নেমে এসেছে।

এই মন্দার প্রভাবে শেয়ার বাজারের বেতাজ বাদশাহ রাকেশ ঝুনঝুনওয়ালার হয়েছে বিরাট ক্ষতি। এমনকি শেয়ারবাজারের এই নিম্নমুখী প্রভাবে খারাপ পাররম্যান্স দেখাচ্ছে কিছু ভালো স্টকও। তার ঝুলিতে থাকা দুটি স্টক বিরাট ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বাজারের খারাপ প্রভাবে। বিশেষ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে তার দুটি প্রিয় স্টক। আর এই কারণে ক্ষতি হয়েছে প্রায় ১,০০০ কোটি টাকা।

রাকেশ ঝুনঝুনওয়ালার দুটি প্রিয় স্টক যেগুলো খুবই খারাপ পারফরম্যান্স করেছে, সেগুলি হলো টাইটান এবং স্টার হেলথ অ্যান্ড অ্যালাইড ইন্স্যুরেন্স। এই দুই শেয়ার থেকেই ১,০০০ কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে তার। গত ৫টি ট্রেডিং সেশনে টাইটানের স্টক ২,০৫৩.৫০ টাকা থেকে নেমে এসেছে ১,৯৪৪.৭৫ টাকায়। এছাড়া স্টার হেলথের স্টক ৫৩১.১০ থেকে নেমে দাঁড়িয়েছে ৪৭৫.৯০ টাকায়। এই কারণে টাইটানের শেয়ারে রাকেশ ঝুনঝুনওয়ালার ক্ষতি হয়েছে ৪৮৫ কোটি টাকার এবং স্টার হেলথে লস হয়েছে ৫৫৫ কোটি টাকার।

rakesh jhunjhunwala ncc

ন্যাশনাল স্টক এক্সচেঞ্জ এর হিসেব অনুযায়ী ১লা জুলাই ২০২২ টাইটানের শেয়ার কিছুটা বেড়েছে এবারে। গত সপ্তাহের থেকে শেয়ারের দাম বেড়েছে ৪.৯৫ টাকা বা ০.২৬ শতাংশ। এদিন মার্কেট বন্ধ হওয়ার সময় সামান্য লাভের সাথে ১৯৪৬.২০ টাকায় বন্ধ হয়, আবার স্টার হেলথের ক্ষেত্রে এই শেয়ারের দাম বেড়েছে ১৪.৯৫ টাকা বা ৩.০২ শতাংশ কমে বন্ধ হয়েছে ৪৭৩.৯৫ টাকায়।

➦ আপনার জন্য বিশেষ খবর

Back to top button